কমলগঞ্জে বাড়ি ছাড়া ভুক্তভোগী নারীর সংবাদ সম্মেলন

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি

মৌলভীবাজারে কমলগঞ্জ উপজেলার আলীনগর ইউনিয়নের কামুদপুর গ্রামে বসত বাড়ী জবরদখলের চেষ্টা, মেয়েদের উত্তোক্ত, যে কোন মুহুর্তে লাশ গুম করিয়া দেয়া হবে বলে হুমকি প্রদান করাসহ একাধিক অভিযোগে গতকাল ২৪ মার্চ দুপুরে মৌলভীবাজার অনলাইন প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ভুক্তভোগী মোছাঃ মমতা বেগম। লিখিত বক্তব্য তিনি জানান-সন্ত্রাসীদের কন্যা সন্তানদের নিয়ে বাড়ী ঘর ছেড়ে অতিকষ্টে জীবন যাপন করে আসছেন। দীর্ঘদিন যাবত বখাটে জাহিদুল ইসলাম লিমন (২৩) তার মেয়েকে উত্যক্ত ও নানা কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছে। এবং স্কুলে যাওয়ার সময় পথ আটকিয়ে দিচ্ছে। উৎপাত সন্ত্রাসী কর্মকান্ড বেড়েই চলছে। মেয়েকে তার কাছে বিয়ে না দিলে এসিড নিক্ষেপ করবে, বসতঘর জ্বালিয়ে দিবে। এবং বাড়ি ঘরে থাকতে দিবেনা। এসব ঘটনায় সর্বশেষ বিগত ১২ ফেব্রুয়ারী দুপুর অনুমান ০২.০০ ঘটিকার সময় জাহিদুল ইসলাম লিমন , মোঃ আকবর মিয়া (৫০) মোঃ তাহির মিয়া (৬০) মোছাঃ হনুফা বেগম (৩৫)সহ দলবন্ধ লোক নিয়ে তাদেরকে বাড়ী থেকে তাড়িয়ে দিতে তার ও মেয়েদের উপর হামলা চালায়। এ সময় তিনি গুরুতর আহত হন। এ ঘটনায় কমলগঞ্জ থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। বিষয়টি বর্তমানে পুলিশ তদন্ত করছে। থানায় মামলা দায়ের করায় আকবর মিয়া ও সন্ত্রাসী লিমনগংরা ক্ষিপ্ত হয়ে আমাদেরকে খুন করার জন্য খুজেঁ বেড়াচ্ছে। তাদের সন্ত্রাসী কর্মকান্ড ও প্রান ভয়ে কন্যা সন্তানদের নিয়ে বসত বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে বেড়চ্ছি। মামলা তুলে নিতে খুন গুমের হুমকি দেওয়ায় গত ১৯ মার্চ পুনরায় কমলগঞ্জ থানায় একটি সাধারণ ডায়রী ( নং- ৯৪৭) করেছি। তিনি আরো জানান- আকবর মিয়া কামুদপুর এলাকায় একজন ভয়ংকর লোক। খোঁজখবর নিলে নির্মমতার অনেক চিত্র পাওয়া যাবে।

আপনার মতামত লিখুন :