কুড়িগ্রামের কলেজ শিক্ষকের হাত কাটা মামলায় গ্রেফতার ৪

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি

কুড়িগ্রামে কলেজ শিক্ষক ও সাবেক ছাত্রলীগ নেতা আতাউর রহমান মিন্টুর নৃশংসভাবে হাত কাটার ঘটনায় মামলার প্রধান আসামী মো: বাধনসহ ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গত বুধবার রাত ২ টার দিকে ঢাকার দক্ষিনখান এলাকার একটি বাসা থেকে মামলার প্রধান আসামী মো: বাধন (৩০) ও মো: রশিদ মিয়া (৩৫) কে গ্রেফতার করে পুলিশ। পরে তাদের তথ্যমতে আরেক আসামী মাজহারুল ইসলাম মনোয়ার (৩০) কে বুধবার ভোররাতে কুড়িগ্রামের কাঠালবাড়ী থেকে গ্রেফতার করা হয়। এর আগে মামলার আসামী আল-আমিন আহমেদ শুভ (২৬) কে কুড়িগ্রাম থেকে গ্রেফতার করে তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে মামলার প্রধান আসামীসহ অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতার করে পুলিশ। বৃহস্পতিবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান, কুড়িগ্রামের পুলিশ সুপার সৈয়দা জান্নাত আরা। তিনি বলেন, প্রধান আসামী বাধনসহ ৪ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বাকীদেরও দ্রুত গ্রেফতার করা সম্ভব হবে। গত ১৬ মার্চ দুপুরে কুড়িগ্রামের রাজারহাটের ছিনাই ইউনিয়নের পালপাড়া এলাকায় সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ও কলেজ শিক্ষক আতাউর রহমান মিন্টুর ডান হাতের কব্জি কেটে নেয়াসহ তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা চালায় সন্ত্রাসীরা। এ ঘটনায় ১৮ মার্চ মিন্টু বাবা আলতাফ হোসেন বাদী হয়ে রাজারহাট থানায় ১১ জনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করে। মিন্টু বর্তমানে ঢাকার পঙ্গ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

 

আপনার মতামত লিখুন :