কুয়েতে সংসদ সদস্য শহিদ ইসলাম আটক

জুবায়ের আল মামুন, কুয়েত

মানব পাচার ও অর্থ পাচারের অভিযোগে লক্ষ্মীপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য শহিদ ইসলাম কুয়েতে গ্রেপ্তার হয়েছেন। শনিবার রাতে দেশটির অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি) এমপি শহিদকে গ্রেপ্তার করে।

এ ব্যাপারে কুয়েতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এস এম আবুল কালাম  বলেন, ‘কেন তাকে গ্রেপ্তার করা হলো জানার চেষ্টা করছি।’ শহীদের বিরুদ্ধে কোনো মামলা থাকার কথা দূতাবাসের জানা নেই বলেও জানান রাষ্ট্রদূত।

কুয়েত থেকে সংশ্লিষ্ট সূত্রগুলো জানায়, এমপি শহিদকে অপরাধ তদন্ত বিভাগ থেকে বিচার বিভাগে হস্তান্তর করা হয়েছে। সেখানেই তার ব্যাপারে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

ঘটনাটি সম্পর্কে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন  বলেন, ‘কুয়েত থেকে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আমাকে জানিয়েছেন এমপিকে গতরাতে সিআইডি গ্রেপ্তার করেছে। তার বিরুদ্ধে মানব পাচার ও অর্থ পাচারের অভিযোগ আনা হয়েছে। উনি কুয়েতে একটি বড় ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের প্রধান নির্বাহী। ওই প্রতিষ্ঠানের কুয়েতি চেয়ারম্যান তাকে জামিনে ছাড়ানোর চেষ্টা করছেন।’

বিদেশে বাংলাদেশি এমপি গ্রেপ্তারের প্রসঙ্গে পররাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন, এটা দুঃখজনক এবং একই সঙ্গে লজ্জার বিষয় যে বিদেশে গিয়ে একজন এমপি গ্রেপ্তার হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে এমন সময়ে যখন সারা বিশ্ব মানব পাচারের ব্যাপারে একাট্ট।

সরকারের পক্ষ থেকে কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হবে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আমরা বিস্তারিত জানার চেষ্টা করছি। সরকার এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেবে।’

তবে শহিদের গ্রেপ্তার সম্পর্কিত খবর ঠিক নয় বলে দাবি করেছেন তার স্ত্রী সেলিনা ইসলাম।  তিনি বলেন, ‘তিনি সেখানে কোনো মামলার আসামি নন। কুয়েত সরকারের নিয়ম অনুযায়ী তার ব্যবসার ব্যাপারে আলোচনার জন্য ডেকে নিয়েছে। বিষয়টি নিয়ে দূতাবাসের পরিষ্কার তথ্য ছাড়া কাউকে বিভ্রান্তি না ছড়ানোর অনুরোধ জানাচ্ছি।’

আওয়ামী লীগে যুক্ত সেলিনা ইসলাম জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত ৪৯ নম্বর আসনের এমপি।

এর আগে গত ফেব্রুয়ারিতে কুয়েতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে স্থানীয় একাধিক পত্রিকায় বাংলাদেশি এমপির মানব পাচারে যুক্ত থাকার খবর বেরিয়েছিল।

আপনার মতামত লিখুন :