প্রস্তুত কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার

নিজস্ব প্রতিবেদক:  আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস-২০২১ উদযাপনে প্রস্তুত কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার। এ উপলক্ষে ইতোমধ্যে প্রস্তুতির কাজও শেষ হয়েছে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে। রং আর আলপনায় সাজানো হয়েছে পুরো এলাকা।রং করা হয়েছে মূল বেদিসহ রাস্তার পাশের দেয়াল। শোভা পাচ্ছে ভাষা আন্দোলনের নানা গান, কবিতা ও স্লোগান। দিবসটি যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন ও শ্রদ্ধা নিবেদনের উদ্দেশ্যে ভাবগম্ভীর পরিবেশ বজায় রাখার জন্য ছাত্র-শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ সবার প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন ঢাবি ভিসি অধ্যাপক ড. আখতারুজ্জামান।করোনার কারণে দিবসটি উদযাপনের জন্য ঢাকা বিশ্ববিদালয় (ঢাবি) কর্তৃপক্ষ এ বছর সীমিত পরিসরে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করেছে।

অমর একুশে ফেব্রুয়ারি মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে কেন্দ্রীয় শহিদ মিনার এবং আজিমপুর কবরস্থানে সর্বস্তরের জনসাধারণের শ্রদ্ধা নিবেদনের সব অনুষ্ঠানের ব্যবস্থাপনার দায়িত্ব ঢাবি কর্তৃপক্ষ পালন করে থাকে।এ বছরও যথাযোগ্য মর্যাদা ও ভাবগাম্ভীর্যের সঙ্গে দিবসটি পালনের জন্য প্রয়োজনীয় কার্যক্রম পরিচালনা এবং সুষ্ঠু, সুশৃঙ্খল ও শান্তিপূর্ণভাবে বাস্তবায়নের উদ্দেশ্যে কেন্দ্রীয় সমন্বয় কমিটি এবং বিভিন্ন সাব-কমিটি গঠন করা হয়েছে।কোভিড-১৯ উদ্ভূত পরিস্থিতি বিবেচনায় দিবসটি সুষ্ঠুভাবে উদযাপনের জন্য কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে আগত সবাইকে বাধ্যতামূলক মাস্ক পরিধান করতে হবে। এছাড়া সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে ও যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে প্রতিটি সংগঠন-প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে সর্বোচ্চ পাঁচজন প্রতিনিধি ও ব্যক্তিপর্যায়ে একসঙ্গে সর্বোচ্চ দুইজন শহিদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করতে পারবেন। কেন্দ্রীয় শহিদ মিনার ও আজিমপুর কবরস্থানে যাতায়াতের জন্য একটি রুট-ম্যাপ প্রণীত হয়েছে, যা যথাযথভাবে অনুসরণ করার জন্য সবার প্রতি অনুরোধ জানানো হয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :